মেইন ম্যেনু

বান্দার ওপর আল্লাহর চারটি হক, যেগুলো অবশ্যই পালন করতে হবে

life islam

মহান আল্লাহ চাইলে আমাদেরকে অন্য কোনো প্রাণি বা কীটপতঙ্গ বানিয়েও সৃষ্টি করতে পারতেন। কিন্তু তা না করে তিনি আমাদেরকে আশরাফুল মাখলুকাত তথা সৃষ্টির সেরা জীবের মর্যাদা দিয়ে সৃষ্টি করেছেন। এজন্য মানুষ হিসেবে আমাদের আল্লাহর শোকর বা কৃতজ্ঞতা আদায় করা আবশ্যক।

আর আমরা যত তার প্রতি কৃতজ্ঞতাভ আদায় করি তা যথাযথ হক আদায় করে সম্ভব হবে না। তবুও সর্বাত্মকভাবে আল্লাহর হক আদায়ের চেষ্টা অব্যাহত থাকা বান্দা হিসেবে আমাদের কর্তব্য। আমাদের সৃষ্টির মূল উদ্দেশ্যই হলো ইবাদত। সৃষ্টির উদ্দেশ্য সম্পর্কে সম্যক ধারণা থাকলে আল্লাহর গোলামি তথা ইবাদত থেকে বিরত থাকার কোনো সুযোগ নেই।

আল্লাহ আমাদেরকে বিবেক-বুদ্ধি দান করেছেন। এই বিবেক-বুদ্ধি দিয়েই জেনে নিতে হবে আমাদের করণীয় কী। তা সত্ত্বেও আল্লাহ আমাদের ওপর করুণা করেছেন। বিভিন্ন সময় নবী-রাসুল পাঠিয়ে জানিয়ে দিয়েছেন আমাদের পার্থিব জীবন কেমন হবে। এমনকি আল্লাহর গোলামি কিভাবে করতে হবে, তিনি আমাদের কাছে কী চান সেগুলোও বলে দিয়েছেন। এটা আমাদের ওপর যে কত বড় অনুগ্রহ তা বলার অপেক্ষা রাখে না। এজন্য প্রত্যেকটি মানুষের উচিত তার ওপর আল্লাহর কী কী হক আছে তা ভালোভাবে জেনে নেয়া এবং আদায়ের সর্বাত্মক চেষ্টা করা।

মানুষের দায়িত্বে মহান আল্লাহর মোট চারটি হক রয়েছে।

১. একটি হলো কোরান-হাদিসের আলোকে তার সত্তা ও গুণের প্রতি পূর্ণ বিশ্বাস স্থাপন করা।

২. দ্বিতীয়টি হলো যেসব আকিদা-বিশ্বাস, আমল-আখলাক, লেনদেন, কাজ-কারবার মহান আল্লাহর পছন্দ সে সব গ্রহণ করা।
৩. তৃতীয়টি হলো আল্লাহর সন্তুষ্টি ও ভালোবাসাকে সবকিছুর ওপর প্রাধান্য দেয়া।

৪. চতুর্থটি হচ্ছে মানুষের প্রতি ভালোবাসা, শত্রুতা এবং দয়া-মায়া সবকিছুই মহান আল্লাহর সন্তুষ্টির উদ্দেশে করা।

এই চারটি হক যথাযথভাবে পালনের সর্বাত্মক চেষ্টা বান্দাদের মাঝে অবশ্যই থাকতে হবে।