মেইন ম্যেনু

বায়ু দূষণ : দিল্লিতে ১৮শ স্কুল বন্ধ

delhi-pollution-120161105123549

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে গত সপ্তাহের দিওয়ালি উৎসবের পর শহরজুড়ে ভয়াবহ দূষণ দেখা দিয়েছে। গত কয়েক বছরে এমন দূষণ দেখেনি রাজধানীবাসী। দূষণের কারণে পুরো শহরে কুয়াশাচ্ছন্ন পরিবেশ তৈরি হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে শনিবার ১ হাজার ৮শ’ প্রাইমারি স্কুল বন্ধ রাখা হয়েছে।

দিওয়ালি উৎসব উপলক্ষে হাজার হাজার আতশবাজি ফোটানো হয়েছে। এতে চারদিকে ধোঁয়া ছড়িয়ে পড়ায় ভয়াবহ দূষণের সৃষ্টি হয়েছে। আতশবাজি পোড়ানোর কারণে বাতাস অনেক বেশি দূষিত হয়।

এ বছর দিওয়ালি উৎসবে বাতাসে দূষণের মাত্রা রেকর্ড ছাড়িয়েছে। বাতাসে ধুলিকণার মাত্রার নিরাপদ সীমা ধরা হয় প্রতি কিউবেক মিটারে ১শ’ মাইক্রোগ্রাম। কিন্তু এবার দিল্লিতে ধুলিকণার মাত্রা প্রতি কিউবেক মিটারে ৯৯৯ মাইক্রোগ্রাম পর্যন্ত পৌঁছেছে, যা স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ক্ষতিকর।

দিল্লির স্থানীয় সরকার গত সপ্তাহে এক ঘোষণায় জানিয়েছিল, দূষণের মাত্রা কমানোর জন্য তারা বাতাস বিশুদ্ধ করার ব্যবস্থা গ্রহণ করবে। কিন্তু চারপাশের পরিবেশ দেখে মনে হচ্ছে না যে দূষণের মাত্রা কমানোর জন্য কোনো ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

শহরে পৌরসভা কর্তৃক পরিচালিত স্কুলগুলোতে ৯ লাখ শিশু পড়াশুনা করে। দূষণের কারণে এই বিপুল সংখ্যক শিশুর স্বাস্থ্য ঝুঁকির আশঙ্কায় স্কুলগুলো বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

দিল্লির পৌরসভা মুখপাত্র ইয়োজেনদ্রা মান এএফপিকে জানিয়েছেন, কুয়াশার কারণে শনিবার স্কুল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে সোমবার থেকেই আবার স্কুলগুলোর কার্যক্রম শুরু হবে।

দিল্লিতে দিন দিন বায়ু দূষণের মাত্রা বেড়েই চলেছে। দূষণের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শুক্রবার বেশ কয়েকটি রাজ্যের কর্মকর্তাদের নিয়ে বৈঠক করেছেন পরিবেশমন্ত্রী।

গত সপ্তাহে জাতিসংঘের এক রিপোর্টে বলা হয়েছে, বায়ু দূষণের কারণে সৃষ্ট বিভিন্ন রোগ, ম্যালেরিয়া বা এইডস-এ প্রতি বছর ৫ বছরের চেয়ে কম বয়সী প্রায় ৬ লাখ শিশুর মৃত্যু হচ্ছে।