মেইন ম্যেনু

ভারতে ইসলামি ব্যাংক চালুর প্রস্তাব

ভারতে ইসলামি ব্যাংকিং চালু করতে চায় রিজার্ভ ব্যাংক অব ইন্ডিয়া। দেশটির কেন্দ্রীয় ব্যাংক সুদবিহীন এ ব্যাংকিং পদ্ধতি চালুর ব্যাপারে সরকারকে একটি প্রস্তাব দিয়েছে।

ভারতের সংবাদমাধ্যম ‘দ্য হিন্দু’ জানিয়েছে, গত সেপ্টেম্বরে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের বার্ষিক প্রতিবেদনে ইসলামি ব্যাংক চালুর ব্যাপারে প্রস্তাব করা হয়। ওই সময় থেকেই রিজার্ভ ব্যাংক অব ইন্ডিয়ার গভর্নর হিসেবে কাজ শুরু করেন উরজিত পাতিল।

বিষয়টি নিয়ে এখনো আলোচনা চলছে ভারতের অর্থ ও বাণিজ্য পরিসরে। আজ রোববার বিষয়টি নিয়ে জনমত জরিপের আয়োজনও করেছে দ্য হিন্দুর অর্থনীতি বিষয়ক সাময়িকী বিজনেস লাইন।

ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ওই প্রস্তাবে বলা হয়, ভারতের মুসলমান ও অন্যান্য মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশের সঙ্গে সম্পর্কের ক্ষেত্রে এটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ হতে পারে। ভারতে ১৮০ মিলিয়ন মুসলমান আছে। যা ভারতের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় জনগোষ্ঠী। ইসলামী রীতিতে সুদপ্রথা নিষিদ্ধ। আর এখানেই ইসলামি ব্যাংকিংয়ের ধারণার উৎপত্তি।

এর আগে ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পক্ষ থেকেই বলা হয়েছিল, সমবায়, বিনিয়োগ তহবিলের মতো ব্যাংকিং খাতের বাইরের প্রতিষ্ঠানে ইসলামি অর্থায়ন হতে পারে। তবে এখন সরাসরিই ইসলামি ব্যাংকিং চালুর ব্যাপারে আগ্রহ দেখিয়েছে রিজার্ভ ব্যাংক।

বেঙ্গালুরুভিত্তিক ইসলামি অর্থায়ন সংক্রান্ত একটি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা সাইফ আহমেদ বলেন, কেন্দ্রীয় ব্যাংক ইসলামি ব্যাংকিং চালুর ব্যাপারে সরকারের সঙ্গে কাজ করতে চায়, বিষয়টি সত্যিই গুরুত্বপূর্ণ। ইসলামি ব্যাংকিং চালুর ব্যাপারে পার্লামেন্টে একটি সংশোধনীও পাস করাতে হবে।’

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ইসলামি অর্থায়ন সংক্রান্ত বিষয়টির উন্নয়ন খুবই ধীরগতিতে হচ্ছে। কেননা আমলাতন্ত্র ও ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) এর শক্ত বিরোধিতা করছে। বিলম্ব হতে পারে, কিন্তু বিষয়টি নিয়ে দেশটির দূরত্বও কমছে।



« (পূর্বের সংবাদ)