মেইন ম্যেনু

মুসলিমবিদ্বেষী বক্তব্য মুছে দিলেন ট্রাম্প

trump-website_30296_1478784975

ডোনাল্ড ট্রাম্পের ওয়েবসাইট থেকে তার দেয়া সব মুসলিম বিরোধী বক্তব্য মুছে দেয়া হয়েছে।

বৃটিশ সংবাদমাধ্যম ইন্ডিপেন্ডেট এ খবর জানিয়েছে।

ইন্টারনেটের ক্যাশ ডাটা থেকে দেখা যায়, নির্বাচনের দিন অর্থাৎ ৮ তারিখ সকালেও তার ওয়েবসাইটে মুসলিমবিদ্বেষী ওইসব বক্তব্য ছিলো।

কিন্তু বিজয়ী হওয়ার পরের দিনই তা মুছে দেয় তার নির্বাচন পরিচালনা দল। সেখানে ট্রাম্পের ওয়েব সাইটের হোমপেজের লিংক রিডাইরেক্ট করে দেয়া হয়েছে। এখন আগের ওই লিংকে ক্লিক করলে ট্রাম্পকে অনুদান দেয়ার একটি পেজ শো করছে।

ওই পেইজে ২০১৫ সালের নভেম্বরে ফ্রান্সের প্যারিসে সন্ত্রাসী হামলার পর ট্রাম্পের দেয়া বক্তব্যের ভিডিও ছিলো।

ওইসময় তিনি বলেছিলেন, ‘ঘটনা ভালোভাবে না বুঝতে পারা পর্যন্ত মুসলিমদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা থাকবে।’

এ বক্তব্য দেয়ায় তাকে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়তে হয়।

তার সমর্থকেরা অবশ্য তাকে বারবারই সমর্থন করে গেছেন। তারা বলেছেন, ধর্মীয় বৈষম্য নয় আমেরিকানদের ‘নিরাপত্তার’ জন্যেই এমনটা করা দরকার।

এই প্রথম তার ওয়েবসাইট থেকে পূর্বের তথ্য মুছে দেয়ার ঘটনা ঘটলো না। এর আগে স্ত্রী মিলেনিয়ার শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় তার জীবন বৃত্তান্ত মুছে দেয়া হয়।

৯ নভেম্বর আমেরিকানরা ভোটের মাধ্যমে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত করেছেন। তিনি পেয়েছেন ২৭৯টি ও হিলারি পেয়েছেন ২২৮টি ইলেক্টোরাল কলেজের ভোট।