মেইন ম্যেনু

মুসলিম কন্যার ভালবাসা ভর্তি চিঠি মোদীকে! বিনিময়ে কী পেল এই কন্যা?

muslim-woman-reuters-jpg-image-975-568

নোটবাতিল নিয়ে নিজের নামাঙ্কিত ওয়েবসাইটের একটি অ্যাপে মহারাষ্ট্রের মুসলিম কন্যা নাজিয়া শেখের কথা জানতে পেরে অবাক হয়ে গিয়েছিলেন নরেন্দ্র মোদী। ওই অ্যাপটিতে বহু লোক তাঁদের মতামত প্রকাশ করেছেন। তেমনি মত প্রকাশ করেছে নাজিয়া শেখ। মহারাষ্ট্রের মেয়ে নাজিয়া নরেন্দ্র মোদীর অন্ধ ভক্ত এবং এর জন্য তার কোনও লজ্জা নেই।

মোদীর অ্যাপে নোটবাতিল নিয়ে কথা মতামত জানাতে গিয়ে নাজিয়া লিখেছে, সে চায় দেশের প্রধানমন্ত্রী এমনই শক্ত এবং দৃঢ় হোক। নাজিয়ার মতে, সে জানে না রাজনীতি কাকে বলে বা রাজনৈতিক দলের অর্থ কী? সে জানে না কংগ্রেস, শিবসেনা, আম আদমি বা বিজেপি কারা? তার কথায়, সে শুধু জানে নরেন্দ্র মোদী তার দেশের প্রধানমন্ত্রী। সে নরেন্দ্র মোদীকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে বেছেছে, কারণ মোদীর মধ্যেই একজন রাষ্ট্রনায়ক হওয়ার যাবতীয় গুণ আছে। নাজিয়া তার লেখা চিঠিতে আরও জানিয়েছে, ‘অধিকাংশ রাজনৈতিক নেতা দেশকে বেচে জনতার উপর লুঠপাট চালায়। আমি খুব খুশি যে চিরাচরিত এই ধারণাকে ভুল প্রমাণিত করেছেন মোদী। এমনকী, তাঁর বিরুদ্ধে মুসলিমদের যে ধারণা ছিল তা যে সত্য নয় তা-ও তিনি বুঝিয়ে দিয়েছেন। তাই আমি আরও বেশি খুশি, দেশবাসী এমন একজনকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে বেছেছে যিনি সবধরণের প্রতিকূল পরিস্থিতির মধ্যে দাঁড়িয়েও লড়াই করেন। নিজের সিদ্ধান্ত থেকে একচুলও পিছু হঠতে জানেন না মোদী।’ চিঠির শেষে নাজিয়া মোদীকে এ-ও আর্জি জানিয়েছে যে, ‘আপনি এমনই থাকুন। এমন কোনও কাজ করবেন না যাতে আপনার প্রতি আমাদের সম্মান ধূলোয় লুটোয়। যে দৃঢ়তার সঙ্গে আপনি কথা বলেন, সেই স্বচ্ছতা, সততা আপনি কাজেও বজায় রেখে যান। আমি জানি না আপনি আমার এই চিঠি পড়বেন কি না? তবে, এইটুকু বলতে পারি আজ দেশের ১২১ কোটি মানুষ আপনার দিকে চেয়ে রয়েছে।’

তবে, এই চিঠির প্রতিটি লাইনে যেভাবে নাজিয়া প্রধানমন্ত্রী মোদীর প্রতি তার আস্থা জ্ঞাপন করেছে, তেমনি চিঠির শুরুতে এই কথাটিও জানাতে ভোলেনি যে তার এই মোদী-প্রেমের জন্য মুসলিম সমাজে সে আজ ব্রাত্য। নাজিয়ার কথায়, মুসলিম মানেই মোদী বিদ্বেষী হতে হবে, তার পরিবারের লোক এমনটাই মনে করে। কিন্তু, নাজিয়া দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসাবে মোদীকে চায়। আর এর জন্য আজ নিজের পরিবারের কাছেও ঘৃণার শিকার নাজিয়া। কিন্তু, নাজিয়ার এতে কোনও দুঃখ নেই। তার একটাই প্রার্থনা, এত লোকের আশাকে যেন কখনও অসম্মান না করেন মোদী।