মেইন ম্যেনু

মেসির জোড়া গোলে বার্সার নাটকীয় জয়

দুঃসময় পেছনে ফেলে জয়ের ধারা অব্যাহত রেখেছে বার্সেলোনা। শনিবার রাতে স্প্যানিশ লা লিগা ম্যাচে দারুণ এক জয় পেয়েছে লুইস এনরিকের দল। প্রতিপক্ষের মাঠে ভ্যালেন্সিয়াকে ৩-২ গোলে পরাজিত করেছে বার্সা।

শেষ মুহূর্তে পেনাল্টি থেকে গোল করে দলকে মধুর জয় এনে দেন লিওনেল মেসি। অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে সেল্টা ভিগোর কাছে ৩-৪ গোলে হেরে যাওয়ার পর ইনজুরি কাটিয়ে মেসি মাঠে ফিরতেই ছন্দে ফেরে বার্সেলোনা।

গত ম্যাচে দেপোর্তিভো লা করুনাকে ৪-০ গোলে পরাজিত করার পর শনিবার টানা দ্বিতীয় জয় তুলে নিলো ন্যু-ক্যাম্পের দলটি। বার্সেলোনার জয়ে জোড়া গোল করেন মেসি। অপর গোলটি করেন লুইস সুয়ারেজ। ইনজুরি কাটিয়ে ফেরার পর তিন ম্যাচে এ নিয়ে ছয় গোল করলেন মেসি।

অন্যদিকে ভ্যালেন্সিয়ার হয়ে একটি করে গোল করেন মুনির এল হাদ্দাদি ও রদ্রিগো মরেনো। শনিবার স্তাদিও দি মাস্তেলায় খেলার ২২তম মিনিটে এগিয়ে যায় বার্সেলোনা। ১৪তম মিনিটে আন্দ্রেস ইনিয়েস্তার বদলি হিসেবে মাঠে নামা ইভান রাকিটিচ বক্সের ভেতরে মেসিকে দারুণ এক পাস দেন। সেই বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে বাঁ-পায়ের জোরালো শটে স্বাগতিক গোলরক্ষককে পরাস্ত করে বার্সাকে ১-০ গোলে এগিয়ে নেন কিং লিও।

বিরতির পরপরই সমতায় ফেরার জন্য মরিয়া হয়ে পড়ে ভ্যালেন্সিয়া। এর ফলও পায় দলটি। ৫২তম মিনিটে মুনির এল হাদ্দাদির গোলে সমতায় ফেরে স্বাগতিকরা। চার মিনিট পর রদ্রিগো মরেনোর গোলে এগিয়ে যায় ভ্যালেন্সিয়া। তবে ম্যাচে ফিরতে সময় নেয়নি বার্সেলোনা। ৬২তম মিনিটে দারুণ এক গোল করে বার্সাকে সমতায় ফেরান লুইস সুয়ারেজ। নির্ধারিত সময়ের খেলা ২-২ এ সমতা থাকায় দুই দলের পয়েন্ট ভাগাভাগি করেই মাঠ ছাড়বে বলে মনে হচ্ছিল। কিন্তু তখনই ঘটে নাটকীয় ঘটনা।

অতিরিক্ত সময়ের খেলা শেষ হওয়ার এক মিনিট আগে জয়সূচক গোলের দেখা পায় বার্সেলোনা। নিজেদের বক্সের ভেতর ভ্যালেন্সিয়ার এক খেলোয়াড় সুয়ারেজকে ফেলে দিলে রেফারি পেনাল্টির নির্দেশ দেন। স্পট-কিক থেকে গোল করতে ভুল করেননি আর্জেন্টিনা সুপারস্টার মেসি। ফলে পূর্ণ তিন পয়েন্টের স্বস্তি নিয়ে মাঠ ছাড়ে বার্সা। এ জয়ের ফলে ৯ ম্যাচ শেষে আপাতত ১৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে উঠে এলো বার্সেলোনা। এক ম্যাচ কম খেলা অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ ১৮ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। সমান ১৮ পয়েন্ট নিয়ে রিয়াল মাদ্রিদ রয়েছে তিন নাম্বারে।