মেইন ম্যেনু

যশোরে ইয়াবা দিয়ে ব্যবসায়ীকে ফাঁসাতে গিয়ে জনরোষে পুলিশ

jess_police2

যশোরের চৌগাছায় এক ব্যবসায়ীকে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে জনরোষে পড়েছে এক পুলিশ কর্মকর্তা। সোর্সের মাধ্যমে রাবণ কুমার পাল নামের ওই ব্যবসায়ীর প্রতিষ্ঠানে ইয়াবা রাখে পুলিশ। এরপর সোর্স দোকান থেকে বের হলেই পাশেই অবস্থান করা সহকারী উপ-পরিদর্শক সিরাজুল ইসলাম সেখানে হানা দেন।

বুধবার দুপুর ১টার দিকে চৌগাছা উপজেলা শহরের মেইন রোডে অবস্থিত ‘সুপার ইলেকট্রিক অ্যান্ড ভ্যারাইটিজ’ নামে একটি দোকানে এ ঘটনা।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দুপুরে চৌগাছা থানার এএসআই সিরাজুল ইসলাম তার সোর্সের মাধ্যমে ওই দোকানে ইয়াবা রাখেন। সোর্স বেরিয়ে গেলে তিনি ওই দোকানে প্রবেশ করে ব্যবসায়ীকে ইয়াবা রাখার কারণ জানতে চাইলে ব্যবসায়ী রাবণ কুমার পাল তার দোকানে ইয়াবা রাখার কথা অস্বীকার করেন।

এসময় ব্যবসায়ীকে আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে আশপাশের ব্যবসায়ীর এগিয়ে আসেন। এক পর্যায়ে তারা সত্য-মিথ্যা যাচাইয়ে প্রতিষ্ঠানের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ পরীক্ষার পরামর্শ দেন। ভিডিও ফুটেজে দেখা যায় পুলিশের সোর্স ওই দোকানে এসে কৌশলে ইয়াবা রেখে যায়। এরপরই পুলিশের ফাঁদের ঘটনার রহস্য বেরিয়ে আসে।

এরপরই পুলিশকে গণপিটুনি দেওয়া শুরু করেন ব্যবসায়ীরা। পরে ক্ষুদ্ধ ব্যবসায়ীরা পুলিশের এ ঘৃণ্য কাজের প্রতিবাদে বিক্ষোভ করেন। তাৎক্ষণিকভাবে তারা দোকান বন্ধ করে চৌগাছা শহরে বিক্ষোভ মিছিল করেন।

খবর পেয়ে চৌগাছা থানার ওসি (তদন্ত) মারুফ আক্তারের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে। এসময় চৌগাছা পৌরসভার মেয়র নূরউদ্দীন আল মামুন হিমেল ও ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ইবাদৎ হোসেন ঘটনাস্থলে এসে ব্যবসায়ীদের শান্ত হতে অনুরোধ করেন। তারা ঘটনার বিচার হবে বলে আশ্বাস দিয়ে ব্যবসায়ীদের শান্ত করার চেষ্টা করেন।

চৌগাছা থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই ওয়াহিদুজ্জামান জানান, অভিযুক্ত এএসআই সিরাজুল ইসলাম ও কনস্টেবল সরজিতকে তাৎক্ষনিকভাবে পুলিশ লাইনে ক্লোজড করা হয়েছে। একই সঙ্গে পুলিশের সোর্স নামধারী যুবককে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

চৌগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মশিউর রহমান জানান, উপজেলার জিওলগাড়ি গ্রামের ফিরোজ শেখের ছেলে আকাশের সঙ্গে ব্যবসায়ী রাবণ পালের বিরোধ ছিল। রাবণকে ফাঁসাতে আকাশ কয়েক পিস ইয়াবা দোকানে ফেলে রেখে পুলিশকে খবর দেয়। দুইজন পুলিশ সদস্য ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই ব্যবসায়ীকে জিজ্ঞাসা করেছে। পরে ভিডিও ফুটেজ পরীক্ষা করে ষড়যন্ত্রের বিষয়টি পরিষ্কার হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত যুবক আকাশকে আটক করা হয়েছে।