মেইন ম্যেনু

যে খাবারগুলো একযোগে খেলেই বিপদ!

190606food_combinations

সব খাবার একসঙ্গে খাওয়া যায় না। কিছু খাবারের সমন্বয় দেহে বিষক্রিয়া সৃষ্টি করে বলে মনে করে আয়ুর্বেদ। আধুনিক বিজ্ঞান বলে, সব খাবারই দেহে প্রবেশ করে বিভিন্ন উপাদানে ভেঙে যায়। যখন তারা হজম প্রক্রিয়া প্রবেশ করে তখন এক খাবারের সঙ্গে অন্যটির মিশ্রণ ঘটে। কিছু খাবার রয়েছে যেগুলো এক হলে ক্ষতিকর হয়ে ওঠে। এখানে জেনে নিন এমনই কিছু খাবারের সমন্বয়। এদের এড়িয়ে চলবে বলে আয়ুর্বেদ।

১. দই ও ফল : আয়ুর্বেদে বলা হয়, দইয়ের মতো টক জাতীয় খাবারে এসিড উৎপন্ন হয়। এটি হজম প্রক্রিয়াকে বাধাগ্রস্ত করে এবং বিপাকক্রিয়াকে ধীর করে দেয়। এর সঙ্গে ফল খাওয়া তাই ক্ষতিকর হয়ে ওঠে।

২. পিপারমিন্ট ও বায়ুপূর্ণ পানীয় : এমনিতেই বিশ্বাস করা হয় যে, সোডার সঙ্গে পিপারমিন্ট মিশলে পাকস্থলীতে সায়ানাইড উৎফন্ন হয়। এটা পুরোপুরি ঠিক তথ্য নয়। তবে ঝুঁকি নেওয়ার দরকার কি?

৩. দুগ্ধজাত পণ্য ও অ্যান্টিবায়োটিক : কয়েক ধরনের অ্যান্টিবায়োটিক দেহকে দুধের ক্যালসিয়াম এবং খনিজ গ্রহণে বাধা দেয়। তাই এটি খাওয়া উচিত নয়।

৪. লেবু এবং দুধ : দুধে কয়েক ফোঁটা লেবুর রস দিলে কি ঘটে? দুধ নষ্ট হয়ে যায়। একই বিষয় ঘটে পাকস্থলীতে। কাজেই তা ক্ষতিকর তো বটেই।

৫. গরম পানি ও মধু : যখন গরম পানি মধু পড়ে তখন ‘অ্যামা’ নামের এক ধরনের বিষাক্ত উপাদান সৃষ্টি হয়। একে সহজে পৃথক করা যায় না। এ চাড়া মধু তার গুণমান হারায় এবং বিষাক্ত হয়ে ওঠে। তাই গরম পানিতে মধু দিয়ে খেতে মানা করে আয়ুর্বেদ।

৬. মাংস ও দুধ : প্রাচীনকালের কিছু গোত্রে মনে করা হতো, দুধ ও মাংস কখনো একসঙ্গে খাওয়া যায় না। সভ্য জগতেও তা মনে করা হয়। তাই একে এড়িয়ে চলতে বলেন অনেকে। সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া