মেইন ম্যেনু

সামান্য অসুস্থ শিশুকে কি টিকা দেওয়া যায় না?

photo-1478407638

ডা. সজল আশফাক : টিকা শিশুকে ছয়টি মারাত্মক রোগ থেকে রক্ষা করে। কাজেই জন্মের পর শিশুকে টিকা দেওয়া গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার। টিকা দেওয়া না হলে শিশু অপুষ্টি, পঙ্গুত্ব, এমনকি মৃত্যুর মুখোমুখি হতে পারে। এক বছর বয়সের মধ্যে সব টিকা দেওয়া শেষ করতে হবে- এটিই হচ্ছে আসল কথা। ১৯৯৬ সালের এক সমীক্ষা অনুযায়ী টিকা না দেওয়ার কারণে প্রতিবছর বাংলাদেশের প্রায় ৫০ হাজার শিশু হামে, ২২ হাজার শিশু ধনুষ্টংকারে এবং প্রায় সাড়ে ছয় হাজার শিশু পোলিওতে আক্রান্ত হয়ে পঙ্গুত্ববরণ করছে। এ তো গেল মাত্র তিনটি রোগের কারণে ক্ষতির খতিয়ান।

এই টিকা দেওয়া নিয়েও বিভ্রান্ত আছে। অনেকে মনে করেন, সামান্য অসুস্থতায় শিশুকে টিকা দেওয়া যায় না বা দিলে ক্ষতি হবে। সামান্য অসুখের কারণে অনেকে টিকা দেওয়ার ডোজ শেষ না করে মাঝেমধ্যে টিকা দেওয়া বন্ধ করে দেন। এই ধারণাটি কিন্তু ঠিক নয়। টিকা দেওয়ার নির্দিষ্ট দিনে সামান্য জ্বর, সর্দি কাশি পাতলা পায়খানা ইত্যাদি হলেও টিকা দেওয়া যাবে। সামান্য অসুখে অথবা অপুষ্টিতে ভোগা শিশুকে টিকা দেওয়া নিরাপদ। এ ছাড়া টিকা দেওয়ার পর শিশুর সামান্য জ্বর, শরীরে লালচে দানা, টিকার স্থানে ঘা ইত্যাদি হতে পারে। এসব ক্ষেত্রে শিশুকে মায়ের দুধসহ অন্যান্য খাবার ও পানীয় স্বাভাবিক অবস্থার মতোই দিতে হবে। তবে উল্লিখিত উপসর্গগুলো গুরুতর অবস্থা ধারণ করলে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে।

সামান্য অসুস্থতার জন্য টিকা দেওয়ার জন্য নির্দিষ্ট সময়সূচি ভাঙা ঠিক হবে না। সময়মতো সব টিকা দিয়ে দিলেই আপনি নিশ্চিত থাকতে পারছেন। তবে আপনি যদি মনে করেন শিশুর অসুস্থতার গুরুতর, তখন কোনো শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে।

লেখক : সহযোগী অধ্যাপক, রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ।