মেইন ম্যেনু

স্বপ্নের চাকরিটি পেতে হলে করুন এই কাজগুলো

office20160915100310

আপনার স্বপ্নের চাকরিটি যেমনই হোক, সেটি পেতে হলে কিছু কাজ কিন্তু আপনাকে করতেই হবে। যেমন কাজ চান তেমন করে তৈরি করতে হবে নিজেকে। দক্ষতা, যোগ্যতা তো লাগবেই সাথে লাগবে বিচক্ষণতা। সুযোগ পেলেই কাজে লাগাতে হবে যথাযথভাবে। হতে হবে পর্যাপ্ত কৌশলী। স্বপ্নের চাকরিটি যেন আপনারই হয় সেজন্য করুন এই কাজগুলো-

একটি অনলাইন পোর্টফোলিও তৈরি করুন
এখন যুগ অনেক এগিয়ে গেছে। আপনি আপনার সিভি জমা দিলেন আর সেখানে থাকা তথ্যই শেষ কথা এমন নয় মোটেই। আপনাকে অনলাইনেও খুঁজে দেখবে কোম্পানিটি। ফেসবুক আইডি থেকে শুরু করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আপনার বিচরণের ধরণ থেকে আপনার সম্পর্কে অনেক ধারণাই করে নেবেন তারা। আপনি আরেকটু স্মার্ট হোন। আপনার একটা অনলাইন পোর্টফোলিও তৈরি করে ফেলুন। বিনা খরচেই আপনি এটি তৈরি করতে পারবেন, লঞ্চ এবং হোস্ট করতে পারবেন।

গুছিয়ে ফেলুন ফেসবুক প্রোফাইল
আগের কারণটিই প্রযোজ্য এক্ষেত্রেও। আপনি যখন ছাত্র তখন ফেসবুক প্রোফাইলে তথ্য হিসেবে অনেক এলোমেলো কথাই হয়ত লিখে রেখেছেন। সেগুলো গুছিয়ে নিন। আপনি যদি কোথাও চাকরি করে থাকেন বা পার্ট টাইম কোনকিছুতে যুক্ত থেকে থাকেন তাহলে সেগুলো উল্লেখ করুন। আবার সেই কাজগুলো আপনার বর্তমান প্রত্যাশিত চাকরির সাথে কোন সমস্যা তৈরি করে কিনা খেয়াল করুন। তখন প্রয়োজোনে সেই তথ্য মুছে দিন। আপনার পাবলিক প্রোফাইল হওয়া চায় একদম পরিচ্ছন্ন। আপনার রাজনৈতিক, ধর্মীয় মতামত হওয়া চাই নিরপেক্ষ। প্রশ্নবিদ্ধ যে কোন কিছু থেকে দূরে থাকুন।

কোম্পানিকে কোন সাহায্য করতে পারলে করুন
আপনি যখন ইন্টারভিউ দিতে যাচ্ছেন বা কারও সাথে সাক্ষাতের জন্য যাচ্ছেন তখন আপনার সামনে কোন সমস্যা পড়লে আগ বাড়িয়েই সমাধান দিন। এতে আপনার স্মার্টনেস, সমস্যা সমাধানের ক্ষমতা, বিচক্ষণতার একটা চাক্ষুস পরীক্ষা হয়ে যায়। তবে অবশ্যই আপনি যদি সে বিষয়ে যথেষ্ঠ দক্ষ হোন তবেই এটা করুন। নাহলে হিতে বিপরীত হতে পারে।

নিজের ব্যক্তিত্ব প্রকাশ করুন উজ্জ্বলভাবে
ইন্টারভিউতে নিজেকে প্রকাশ করতে লজ্জা পাবেন না। কখনোই দশের মধ্যে একজন হয়ে যাবেন না। পোশাকে, কথা-বার্তায় আপনি যেন সবার চোখে পড়েন সেদিকে খেয়াল রাখুন। প্রচলিত ভদ্র পোশাক বা মার্জিত আচরণের ছকে আবদ্ধ হবেন না। পরিস্থিতি অনুযায়ী নিজেকে প্রকাশ করুন। যেখানে হাসাটাই স্বাভাবিক সেখানে চুপ থাকা মানে হল আপনি কৌতুকটা বোঝেন নি। তাই স্বাভাবিক হোন।

যথোপযুক্ত তথ্য দিন
আপনি যখন ক্রিয়েটিভ কোন কোম্পানিতে চাকরি করতে যাচ্ছেন তখন সেখানে আপনার অপ্রাসঙ্গিক কোন ক্ষেত্রে চাকরির অভিজ্ঞতা জানানোর কোন মানে নেই। প্রাসঙ্গিক বিষয়ে আপনার শিক্ষা, যোগ্যতা তুলে ধরুন। পত্রিকায় কাজ করতে গেছেন, নিজের একটা ভাল লেখা সাথে নিয়ে যান। শিল্পী হিসেবে নিজেকে দাঁড় করাতে চান? নিজের শিপ্লকর্মের ছোট কোন নিদর্শন বা নমুনা সাথে রাখুন। ইন্টারভিউ বোর্ড ফরমাল জায়গা, তাই এসব দেখানো যাবে না এমন কথা মন থেকে বের করে দিন। যোগ্যতা সরাসরি দেখাতে পারাই বুদ্ধিমানের কাজ।