মেইন ম্যেনু

চলছে ২০ দলের দ্বিতীয় দিনের হরতাল

সাত খুন : হত্যার পর পেট চিরে লাশ ফেলে দেওয়া হয় নদীতে

নারায়ণগঞ্জের র‍্যাব-১১-এর তৎকালীন সদস্যরা অপহৃত সাতজনকে নৃশংসভাবে হত্যা করেছিলেন। তাঁরা প্রথমে চেতনানাশক ইনজেকশন দিয়ে অপহৃত ব্যক্তিদের অচেতন করেন। তারপর মুখে পলিথিন পেঁচিয়ে শ্বাসরোধে হত্যা করেন। সর্বশেষ নদীতে ফেলার সময় লাশগুলোর পেট চিরে দেন তাঁরা। জড়িত র‍্যাব সদস্যদের জবানবন্দিতেই উঠে এসেছে ঘটনার নৃশংসতার বিবরণ। মেজর আরিফ হোসেন ও লেফটেন্যান্ট কমান্ডার এম এম রানা তাঁদের ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে বলেছেন, ২০১৪ সালের মার্চে আদমজীনগরে অবস্থিত র‍্যাব-১১-এর হেডকোয়ার্টারে এক কনফারেন্সে সিও লে. কর্নেল তারেক সাঈদ কাউন্সিলর নজরুলকে গ্রেপ্তারের জন্য আরিফ হোসেনকে নির্দেশ দেন। আর লে. কমান্ডার মাসুদ রানাকে নির্দেশ দেন এ কাজে আরিফকে সাহায্য করতে। মেজর আরিফ তাঁর জবানবন্দিতে বলেছেন, ঘটনার দিন (২৭ এপ্রিল)বিস্তারিত